গাছ জড় বস্তু নয়, তাদের
প্রাণ আছে কিন্তু নড়তে পারেনা!
মানুষ ও প্রাণীদের সে সমস্যা নেই।

পৃথিবীতে সবকিছুতেই সর্বব্যাপী
এক পদার্থের প্রয়োজন, পানি!
যা জীবন দান ও রক্ষা করে,
এটা ছাড়া মানুষ উদ্ভিদ আর
প্রাণিজগতের অস্তিত্ব সম্ভব কি?

অদ্ভুত আঠালো গুণ রয়েছে পানির,
এ কারণেই তার অণুগুলির মধ্যে
সংযোগ হয়, মসৃণ পৃষ্ঠে পানি-বিন্দুগুলো
গাছের কান্ডের অতি ক্ষুদ্র-নলে বা টেস্ট-টিউবে
বা নলে আটকে থাকে!

প্রাণী ও উদ্ভিদের মূল উপাদান জল,
এ বিহীন কেউ কি বাঁচতে পারে?
মানুষ মায়ের গর্ভে পানির মধ্যেই
জীবন শুরু করে, গাছ কিন্তু পারেনা তা!
তাহলে গাছ মাধ্যাকর্ষণ শক্তিকে
উপেক্ষা করে শাখা-প্রশাখা-পাতায়
মূল্যবান পানি উপরে কিভাবে পাঠায়?

মানুষের ও প্রাণির দেহে আছে পাম্প
যার কারণে তাদের রক্ত চলাচল করে,
কিন্তু গাছের হৃৎপিণ্ড নেই!

গাছ দুই মিলিমিটারেরও কম ব্যাসের
ক্ষুদ্র-নলে পানিকে অনেক উচ্চতায় পারে উঠাতে!
নল যত সরু হবে, পানি তত উপরে উঠে
নালীগুলো এতই পাতলা যে অনায়াসে
অনেক পানি শোষন-টান সৃষ্টি করে!
গাছের উপরের দিকে পাতায় বাষ্পীভবন
বা অপসারণের কারণে সৃষ্টি হয় ঊর্দ্ধমুখী প্রবাহ!
পানির এ দু’টি বৈশিষ্ট্য কাজে লাগিয়ে হয় সবই,
কোন পাম্পের প্রয়োজন হয়না!

আমাদের মহাবিজ্ঞানী ই
গাছকে দিয়েছেন এ রকম শক্তি,
যা দেননি বস্তু মানুষ বা কোন প্রাণিকে!
গাছের এ শক্তির কথা জেনে আমরা কি
বিশ্ববিধাতাকে স্মরণ করতে পারিনা?

==================o

উত্তর আমেরিকা,
১৯ শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

GD Star Rating
loading...
GD Star Rating
loading...
এই লেখাটি পোস্ট করা হয়েছে কবিতা-এ। স্থায়ী লিংক বুকমার্ক করুন।

১ টি মন্তব্য গাছের শক্তি

  1. মুরুব্বী বলেছেনঃ

    আহা কি দুঃখজনক !! https://www.shobdonir.com/wp-content/plugins/wp-monalisa/icons/wpml_Frown.gif.gif আমাদের সহ-ব্লগারদের পোস্টে আমরা কেউই মন্তব্য করি না। অথচ আম পাঠক হিসেবে আমরা চাই মন্তব্য আর প্রতি-মন্তব্যে ব্লগিং হোক আনন্দের। Frown

    GD Star Rating
    loading...

মন্তব্য প্রধান বন্ধ আছে।