তুষারপাতের আগে
জমে যাচ্ছি, প্রগাঢ় শ্বাসকষ্টের ভেতর। পাতাহীন বৃক্ষের
প্রতিবেশে পাখিরা যেমন মুখ লুকিয়ে রাখে প্রেমিকার
বুকের বা’পাশে। কাঁপছি – পালকে বুনা ভারী কোট
গায়ে দিয়ে, একাকী সড়কে। আমাকে ফেলে রেখেই
চলে যাচ্ছে যাত্রী ভরা বাস। কাজল বরণ রঙ ধারণ করে মাথার উপর,
দাঁড়িয়ে আছে উইকেন্ডের আকাশ।
পৃথিবীর অন্যপ্রান্তে, বিজয়ের ফুলকি হাতে
সাজাচ্ছে ভবিষ্যত, পড়ুন
কবিতা | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৪৪ বার দেখা | ৭৬ শব্দ
জলির প্রেমিক
জলির সাথে আমার প্রেম আছে, একতরফা প্রেম; জলি পাত্তা দেয় না। জলির বাবা ম্যাজিস্ট্রেট, আমার বাবাও একেবারে হেলাফেলার কেউ নয়। জেলার সবচেয়ে বড় চাউলের আড়ত আমাদের। চাউলের কারবার ছাড়াও দুটো সিএনজি ফিলিং স্টেশন আছে। আরো আছে ট্যানারি বা চামড়ার ব্যবসা। টাকা পয়সা যা আছে একজন পড়ুন
অণুগল্প | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৫০ বার দেখা | ৫৫১ শব্দ
যখন মনে অণু প্রবেশ ঘটে
যখন মনে অণু প্রবেশ ঘটে
এত বাঁধ বিধি এত নীতি নিষেধ
কিছু বুঝে উঠার আগেই ঘটে যায় বিভেদ
যতন করে রেখেছি মন
মনই তো আছে কেবল “সাত রাজার গুপ্ত ধন”
মতনে মতনে করে যুবতীর অণু প্রবেশ
কিছু বুঝে উঠার আগেই ঘটে যায় কাণ্ড অবশেষ
দু দণ্ড অবসরে মিটে যায় সময়
যুবতীরা কেউই পড়ুন
কবিতা | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৪১ বার দেখা | ১০৯ শব্দ ১টি ছবি
জীবন
চোখ থেকে
যেন উড়ে গেল সে
পাতার মতোই ক্ষণস্থায়ী
চিরকাল থাকবেন যিনি তার আবাস আকাশে
এখানে মাটিতে মাটিমন নিয়ে
জলস্থল একাকার ভালবাসার জন চিরদিন উচ্চেই থাকেন
চাইলেই কেউ পারবেনা তাকে
টেনে নামাতে
যদি না তিনি নিজে নামেন প্রিয় থেকে প্রিয়তম হয়ে যান
অচিন পুরের শিখন্ডী এক। পড়ুন
কবিতা | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৩৭ বার দেখা | ৩৬ শব্দ
সুখি হবে
সুখি হবে
গোলাপ কিংবা বকুল ফুল
গন্ধ ছড়াবে পাপড়ি ঝরবে-
আর অজানা পথে নিরুদ্দেশ হবে;
হতে হয় কিন্তু পায়ের গোড়ালিতে
শিকল বেঁধে রাখলে কি হবে?
সত্যকারে যখন ঝরে মাটিতে লুটাবে
তখন কি করবে? এভাবে সন্দেহের
চোখে রাখা কিংবা শিকলে বান্ধা
কোন কাজেই আসবে না; তার চেয়ে
কোন ফুলের কলি হও- গন্ধ পড়ুন
কবিতা | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৬৭ বার দেখা | ৫২ শব্দ ১টি ছবি
সফল নারী
স্বরবৃত্ত ছন্দঃ ৪৪/৪১ মুখখানা তার চাঁদের মতো
দীঘল কালো কেশ,
হাসির রেখা দেখে সবাই
বলবে আহা বেশ। ভ্রমর কালো নয়ন দুটি
নেইকো তাতে লাজ,
ছোট্ট পাখির মতো সদা
করে শুধু কাজ। বাবুইপাখির মতো তারই
সুনিপুণ ওই ঘর,
পিপীলিকার মতো মায়া
নাইতো কেউ যে পর। কচি পদ্মের মতো তারই
হৃদয় জুড়ে সুখ পড়ুন
কবিতা, ছড়া ও পদ্য | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৫৮ বার দেখা | ৬৫ শব্দ
জীবন
জীবন
জীবন থেমে যাওয়া গল্পের ঋতুতে
সরিসৃপ বৃক্ষ এঁকেবেঁকে উঠেছে আকাশ চূড়ায়
কিছুটা প্রয়োজন ছিল, নিয়মের বেড়াজালে
আটকে থেকে অনিয়ম ভাঙ্গার। মেঘের উপরে রাজসিক ঈগল
ডানা ঝাপটিয়ে দেখছে সমতল।
শিকার আর শিকারির দঙ্গলে,
নিয়ম আর অনিয়ম ভাঙ্গার লড়াই তো করতেই হয়। দিনের পর দিন বছরের পর বছর
যুগের পর যুগ পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৭৯ বার দেখা | ২২০ শব্দ ১টি ছবি
অনেক আলোর বিধান ঘিরে
শিশিরের সিক্ততা ছড়িয়ে হেমন্ত চলে যায়। ঘোরের
আভা নিয়ে বাঁচে যে রাখাল,তাকে তুমি বন্দি,
বলতেই পারো। অথবা লিখে রাখতে পারো-
জীবিতদের জন্যই জীবন, মৃতের জন্য- শুধু দীর্ঘশ্বাস উত্থানের কাহিনি শুনিয়ে সূর্য ডুবে যায়। তপ্ত দুপুর
ছিল বুকের দুপাশে, তার সাক্ষী শুধুই থাকে নদী
আর প্রিয় পিপাসা- অনেক আলোর বিধান ঘিরে
রচিত পড়ুন
কবিতা | ৩ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৭১ বার দেখা | ৭৪ শব্দ
কালের উচ্চারণ
কালের উচ্চারণ
আমি তো
অতটা বিদ্বান নই
নেই গোলামীর যোগ্য সনদ!
অথবা, উপভোগ্য কোন জোকার নই
সার্কাসের বামুন নই-
আমি কালের উচ্চারণ! এক মহা যুদ্ধ শেষে
মাঘের শীত জড়ানো গোধূলি রঙ মেখে জন্মেছিলাম,
সেদ্ধ ধানের গন্ধে, ক্ষণ জয়ে
মোহন সান্দ্রে মামুলি উল্কা পতনে, অমোঘ উচ্চারণে
কিন্তু- আমি ধ্বনি নই
ধ্বনি- প্রতিধ্বনির পড়ুন
কবিতা | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৭৯ বার দেখা | ৮৬ শব্দ ১টি ছবি
আকাশ আগল খুলেছে
আকাশ আগল খুলেছে
বরফ ভেঙ্গে যে সাদা মেয়েটা
আসছে; তাকে দেখেই
আকাশ আগল খুলেছে।
তার চোখ, নাক, ঠোঁট,
চিবুক এমন মোহনীয় বরফকুচিও লোভ সংবরণ
করতে পারছে না। তাকে
আবৃত করতে রীতিমত প্রতিযোগিতা
শুরু করেছে। বরফের প্রতি
মেয়েটা উদাসীন অথবা
উটকো ঝামেলা মনে করছে। বরফ নিয়ে আমার আদিখ্যেতা
নেই, ঠাণ্ডা বিষয়ক পড়ুন
কবিতা | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৬৪ বার দেখা | ১২৪ শব্দ ১টি ছবি
ঘাঙ্গুরের জল
যদি আবার কোনোদিন আকাশে মেঘ জমে
যদি আবার কোনোদিন সেই মেঘ থেকে বৃষ্টি
ছুঁয়ে দেয় ঘাঙ্গুরের জল,
তবে এসো এই খরদুপুরে কাকভেজা হই! অমসৃণ যতো পথ অনিচ্ছায় দিয়েছি পাড়ি
ঘাঙ্গুরের জলে সেইসব দিনগুলি চলো বিসর্জন
দিই তাড়াতাড়ি!
আমার দিনগুলো এখন অনেক বড়ো, শেষ হতে
চায় না; রাতগুলোও জানি কেমন তরো! ডাকবাক্সে কতোদিন কোনো পড়ুন
কবিতা | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৫৮ বার দেখা | ৬৮ শব্দ
সত্যের আধারে অভিমান
সত্যের আধারে অভিমান
মুক্তাগুলো অশ্রু হলো আজ
পরবে কোথায় ময়ূরকণ্ঠী হার?
চোখের কোণে এক সাগরের জল
হৃদয় তবু সাগর জাহাজ খোঁজে। পাল ছেঁড়া সেই জাহাজ সাগর জলে
খুঁজেফিরে ছোটো কোনো দ্বীপ,
কম্পাসটি তার কাজ করে না আজ
কী লাভ বলো অভিমানী হলে? ফুলের বুকে লুকিয়ে থাকা ভ্রুণ
পায় কী সদা মেঘপরীদের দেখা?
কিছু পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৬৩ বার দেখা | ১০২ শব্দ ১টি ছবি
পিছনে পায়ের দাগ রেখে আসি
বিমুগ্ধ-আবেশ কেটে গেলে শরাব মিথ্যে হয়ে যায়
তবু লালপানির পেয়ালা হাতে বসে থাকি;
জীবন দোল খাচ্ছে অবিরত ঘড়ির পেন্ডুলামের মতো। এখনো এ ঘরের সব কোন ছেয়ে আছে শেষ বিকেলের সুরভি-মদিরা
এখনো মুছেনি তানপুরার শেষ ঝংকারের রেশ
গোধুলীর কনে দেখা আলোর ঘেরে ফুটি ফুটি সন্ধ্যামালতী
আকাশে পাখসাট বাজে——-বিহঙ্গম ফিরছে কুলায়;
নিষ্প্রাণ স্ট্যাচুর পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ২৮৬ বার দেখা | ৯২ শব্দ
ভালোবাসা বুকে আশা
৪৪/৪১ ভালোবাসা আকাশ সম
ভালোবাসা ধন,
ভালোবাসা কিনতে লাগে
খাঁটি একটা মন। এই পথে’তে চলতে গেলে
বাঁধা আছে ভাই,
দুঃখ কষ্টে জর্জরিত
বাঁচার উপায় নাই। খুব সহজে হয় না পূরণ
মনের সকল সখ,
খল চরিত্র গুলো তাদের
জীবন করে লক। ভালোবাসা বুকে আশা
স্বপ্ন বহু দুর,
ভালোবেসে জীবন মুখে
ধরে গানের সুর। ভালোবাসা বিহীন তবে
প্রাণে নাই তো সুখ,
ভালোবাসা থাকলে সেথায়
আসে না পড়ুন
কবিতা, ছড়া ও পদ্য | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৬৮ বার দেখা | ৪৬ শব্দ
কোথায় খোকা
৪৪/৪২ স্বরবৃত্ত ছন্দ বাবা মাকে সুখে রাখতে
ছাড়ল খোকা বাড়ি,
আসার পথে প্রাণটা গেলে
খোকার দেহ ছাড়ি। ইচ্ছে ছিলো বাবা মাকে
রাখবে খোকা সুখে,
তা হলো না বাবা মা আজ
ভাসছে শুধু দুখে। নয়ন ভরা স্বপ্ন ছিলো
বাবা মাকে নিয়ে,
জীবন নষ্ট ধরার বুকে
আরো নষ্ট হিয়ে। হলো না আর স্বপ্ন পূরণ
বলছে পড়ুন
কবিতা, ছড়া ও পদ্য | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৬৮ বার দেখা | ৬৬ শব্দ