জানুয়ারী ২০২১ বিভাগের সব লেখা

২৬ শে জানুয়ারি (প্রজাতন্ত্র দিবসের কবিতা)
২৬ শে জানুয়ারি (প্রজাতন্ত্র দিবসের কবিতা)
কলমে-লক্ষ্মণ ভাণ্ডারী ছাব্বিশে জানুয়ারি মোরা পালন করি
প্রজাতন্ত্র দিবস আজিকে,
প্রভাতে উঠিল রবি মেঘেঢাকা লাল ছবি
আবীর মাখানো পূর্ব দিকে। ভারত মৃত্তিকা পরে জাতীয় পতাকা উড়ে
প্রফুল্লিত সবাকার প্রাণ,
দেশের সকল জাতি পুলকে উঠিল মাতি
গাহে ভারতের জয়গান। ভারতের অগ্নিশিশু নেতাজি সুভাষ বসু
দেশবন্ধু চিত্তরঞ্জন দাশ,
বিনয় বাদল নাম দিনেশের পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৫০৮ বার দেখা | ৭৮ শব্দ
নেতাজী সুভাষ তুমি (দেশাত্মবোধক কবিতা)
নেতাজী সুভাষ তুমি (দেশাত্মবোধক কবিতা)
নেতাজী সুভাষ তুমি (দেশাত্মবোধক কবিতা)
কলমে- লক্ষ্মণ ভাণ্ডারী নেতাজী সুভাষ নাম হে বীর কর্মী মহান
তুমি লড়েছো দেশের তরে,
শ্রীজানকী নাথ পিতা প্রভাবতী তব মাতা
জন্ম নিলে কটক শহরে। পরাধীন দেশমাতা স্বদেশের স্বাধীনতা
করেছো সংগ্রাম দেশহিতে,
রক্ত দাও স্বাধীনতা দৃপ্ত তব এই কথা
চেতনা জাগায় পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১২২ বার দেখা | ৮১ শব্দ ১টি ছবি
জেদ
জেদ
রঙবিরল রাস্তার মোড় ছিল বেশ-
সেইদিন জেদ ধরেছিলাম ফুলের গন্ধ নিবো বলে
তা আর হয়ে উঠল না-
এতোটাই ধূলিবালি ছিল বুঝাছিল না । সত্যই বড়ই গাছ হেঁটেই আসল!
তারপর ঢিল ছুড়লাম বড়ই পরল না।
প্রশ্নমালা কিছু বর্ণ রাস্তার মোড়ে কৃষ্ণচূড়া
ছড়িয়ে পড়ুন
কবিতা | ৮ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৬৮২ বার দেখা | ৬৯ শব্দ ১টি ছবি
গোলাপ প্রেমে বাঁধা
গোলাপ প্রেমে বাঁধা
নির্জন গভীর রাতের নীড়ে শিশিরের শব্দে কান পেতেছি বারবার
এক মগ ধোঁয়া ওঠা কফির ঘ্রাণে
মিশে গেছি বহুবার,
সদ্য লেখা কবিতার মত রাত্রি আজি মেলেছে দুর্বোধ্য ডানা
নক্ষত্র’রা ঝরছে টুপটাপ শব্দ ছাড়া,
কবিতায় ফোটাতে পারে প্রেমের ঘ্রাণ ঢেলে গোলাপ ফুল:
স্বপ্ন কুসুম —
ভোরের ঠোঁট পড়ুন
কবিতা | ৩ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১০৫৬ বার দেখা | ৬৪ শব্দ ১টি ছবি
দহন ২
এত নিখুঁত কালো কেন?
আমার তো তালা খুললেই সকাল ছিল!
নিশ্ছিদ্র অমাবস্যায় কালোর মধ্যেও
বহু বিন্যস্ত স্তর,
আমাকে একটু ঘুম দাও –
আমাকে একটু সকাল দাও –
আমাকে একটু আলো দাও ! পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৮৬ বার দেখা | ২৮ শব্দ
লিখে_রাখি_করোনাকাল_৪৬
দীর্ঘদিন ঘরে আলো ঢুকে না
দীর্ঘদিন কপাটের ওপারে কী
আছে দেখা হয় না।
শুনেছিলাম করোনার তাণ্ডবে
মানুষ মরে যাচ্ছে, বিশ্বাস হয় নি
ওমন হয় নাকি! বুকের বোতাম খুলে সদর্পে ঘুরে
বেরিয়েছি বিশ্ব ব্রহ্মাণ্ড, থোড়াই
কেয়ার করেছি করোনা।
করোনা গিমিক মিথ্যা প্রমাণ করতে
কোন কসুর রাখিনি। নিজে আক্রান্ত
হই নি, করোনা মিথ্যা। করোনার অস্তিত্ব ভুলতে বসেছিলাম।
অন্যের পড়ুন
কবিতা, জীবন | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১২৪ বার দেখা | ১১২ শব্দ
উঠে যায় ভালোবাসা
উঠে যায় ভালোবাসা
বহুবার ভেবেছি, খুন করা, ঘুন পড়া
আমার সুকোমল হৃদয় হতে ভাঙ্গা ভাঙ্গা
স্মৃতিগুলো মুছে ফেলবো।
অথচ, সেই স্মৃতিগুলো শিকড় হয়ে
শীর্ণ হৃদয় জুড়ে রয়ে গেল অবশেষে! তোমার নাম জপতে জপতে
ভালোবাসার বদঅভ্যাসে
ভিতরটা পুড়ে যায় কখনো কখনো।
তোমাকে পড়ুন
কবিতা | ৪ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৬৭৪ বার দেখা | ৯৪ শব্দ ১টি ছবি
রঙিন ভালোবাসা
রঙিন ভালোবাসা
আমার কপালের মাঝ বরাবর পিস্তলটা ঠেকিয়ে যখন আমার শেষ ইচ্ছাটি জানতে চাওয়া হল আমি তখন আমার মধ্যে নেই। পুরো শরীর জুড়ে বিজলীর মত ঝাকুনিতে ঘামের অনুভূতি আন্দাজ করা কঠিন হবে। -না ! আমাকে বাঁচতে দিন, আমাকে মারবেন না। পড়ুন
অণুগল্প, গল্প | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৯০৯ বার দেখা | ৪৬০ শব্দ ১টি ছবি
আমি দূর্বার
আমি দুর্বার, আমি দুর্বার
আমি সব অন্যায় অবিচার ভেঙে করি চুরমার। আমি মানি তো না কারো কালো আইন
যদি আমার সামনে থাকে ভয়ানক মাইন। আমি তো শূচি শুদ্ধ পাখি চাতক
আমায় বলতে পারে না কেউ ঘাতক। আমি তো অশনি সংকেতের ঝংকার ধ্বনি নয়
করি পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ২০০ বার দেখা | ৫০ শব্দ
ভালোবাসার মূল্য কত?
ভালোবাসার মূল্য কত?
ভালোবাসার শুরু কোথায়?
গর্ভধারিনীর দুগ্ধ পানে!
ভালোবাসার শেষ কোথায়?
স্বার্থপরায়ণ ভালো জানে! ভালোবাসার মূল্য কত?
যার ভাবে সে জানে।
ভালোবাসার প্রতিদান কী?
যায়না দেয়া এই জীবনে। পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১২০ বার দেখা | ২১ শব্দ ১টি ছবি
গাছের জন্মদিন
গাছের জন্মদিন
শংকর দেবনাথ – দাদা, বাবাকে যা যা আনতে বলেছিলি, বাবা কি সে সবকিছু নিয়ে এসেছেন?
সন্তু বলে ওর দাদা রন্তুকে। হ্যাঁ, সবই এনেছেন। এখন আমাদের কাজগুলো তাড়াতাড়ি করে ফেলতে হবে। চল ভাই। রন্তু সন্তুর হাত ধরে এগিয়ে যায় ওদের বাগানের দিকে। সকাল থেকে রন্তু আর সন্তু খুবই পড়ুন
গল্প | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১৪২ বার দেখা | ৬৯৫ শব্দ
প্রিয়তমা-র তরে (১)
শুরুতে আমি তোমার দিকে হালকা চেয়ে দেখেছিলাম। আস্তে আস্তে কিভাবে যেন তোমাতে নিমজ্জিত হয়ে যেতে লাগলাম। নিজেকে না পারি রাখতে, না পারি বুঝাতে। কি যে করি? মুশকিলে পড়ে গেলাম। তবে তোমাতে নিমজ্জিত হয়ে ভালোই লাগতে লাগলো। নিজেকে যেন অন্য কোথাও খুঁজে পেতে লাগলাম। ভালোই পড়ুন
অণুগল্প | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৭৭৮ বার দেখা | ২১৫ শব্দ
মানুষের এত তাড়া থাকতে নেই
আমার তো কোনো অবস্থান নেই
তবু সকল কিছু আধুনিক লাগে
পৃষ্ঠা পৃষ্ঠা গৃহহীন পাখিদের মতো;
শাদা কাগজে বসন্ত টাঙিয়ে
ঘন জঙ্গলের দিকে যাচ্ছে
রোদ করতলে ধানি জমির মাঠ,
ইকোনো গোধূলির খোলসে ঢুকে
জমিয়ে উঠেছে আশাদায়ক
ফুল গন্ধ নির্ভরে মিশে
এই শহর; অদূরে সংঘবদ্ধ গ্রাম
এখানে কতখানি মধুর বিষণ্ণ জানো? পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৫২১ বার দেখা | ৩৯ শব্দ
সঙ্গী
যে হইবে সঙ্গী তোমার
রহিবে সাথে সদা,
কবু কহিবে নাগো তোমায়
দিয়োনা মোরে বাধা।
আপদে বিপদে সর্বপদে
থাকিবে তোমার পাশে,
কিছু নাহি সে পাহিবে শুনিতে
কি বলিল লোকে পিছে।
কবু নাহি তারে করিও পর
কবু নাহি দিও ব্যাথা,
সর্বশ্ব তুমি তাহারে দাও
তোমার সকল কথা। পড়ুন
কবিতা, ছড়া ও পদ্য | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৬৭৬ বার দেখা | ৩৫ শব্দ
অনুসৃতা ও শূণ্য হাতের গল্প
অনুসৃতা ও শূণ্য হাতের গল্প
অনুসৃতাকে বাড়ানো হাতটা
শূণ্য রয়ে গেছে আজো।
সময়ের ধূলোর নীচে
অস্পষ্ট হয়ে গেছে কবেই,
সেই হাতের রেখার মানচিত্র। অনুসৃতা তুমি জান কি,
লেখা থাকেনা কিছুই
কখনো হাতের রেখায়।
তাই সময় ধূলোর আস্ফালন
ব্যার্থ পড়ে রয়,
অতীতের কোন ডাস্টবিনে। চোখের জলের ভাষা,
বুঝতে কি পার তুমি?
যদি না বুঝ,
তবে যেও কোন একদিন
নির্জন পাহাড়ের দেশে,
একা পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১৪৪ বার দেখা | ৫৬ শব্দ ১টি ছবি