ফেব্রুয়ারী ২০১৯ বিভাগের সব লেখা

নীরাপুরের চিঠি (দ্বিতীয় অংশ)
“এখানকার জমিদার বাবুর নাম থেকে এই গাওয়ের নাম হয়েছে”, চা দিতে দিতে বৃদ্ধ ফেরিওয়ালা রাশেদুলকে জানালো। স্টেশনটার নামও তাই অবনীপুর রেলস্টেশন। পরের স্টপেজের জন্য ট্রেন ছেড়ে দিলো। একটু নড়ে বসে মেহেরুন নেছার চিঠির খামটা রাশেদুল আবার দেখলো; ৯ মার্চ ১৯৫৯ এ পাঠানো চিঠি। সে ভাবলো, পড়ুন
গল্প | ৯ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ২১৪ বার দেখা | ২২৮ শব্দ
ফাগুন এসেছে ভাই
ফাগুন এসেছে ভাই
“ফাগুন এসেছে ভাই” কবিতাটি বসন্তের নব আগমনে প্রকৃতির কবিতা। প্রকৃতির এই রূপতরঙ্গে দুলে উঠে কবিগুরুর সাথে সকলেই গেয়ে ওঠেন_ ‘ওরে ভাই, ফাগুন লেগেছে বনে বনে।’ তারই সাথে আমরাও গেয়ে উঠি ‘ফাগুন হাওয়ায় হাওয়ায় করেছি যে পড়ুন
কবিতা | ৮ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৪১৬ বার দেখা | ২৪৫ শব্দ ৩টি ছবি
ভালোবাসা...
ভালোবাসা........
ভালোবাসা সে তো নদীর স্রোতের মতো আবহমান ধারা,
সীমাহীন নীল আকাশের মতো বিস্তৃন আবার কখনো
শ্রাবনের মেঘলা আকাশ
ভালোবাসা সে তো বৃষ্টির রিমঝিম শব্দে রবীন্দ্রনাথের গান,
ভোরের বেলা শিশিরের বিন্দু মেশানো শিউলী ফুলের একটি মালা
ভালোবাসা সে তো সন্ধ্যা তারার কাছ পড়ুন
অন্যান্য | ৮ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৬৩০ বার দেখা | ৭২ শব্দ ১টি ছবি
জীবন
জীবন,
যা আবেগ থেকে পাঠ করা হয় সুনিপুন !
আপনার কি মনে হয়,আপনি মানুষ?
তাহলে স্বপ্ন দেখুন বেঁচে থাকার সাহস নিয়ে । আপনি ভবিষ্যৎ লিখুন একটি সাদা পাতায়,
আর ক্যানভাসে এঁকে রাখুন কালো অতীত !
হ্যাঁ কালো অতীত, হোক কিছুটা ধূসর রঙের! এই যে আমরা প্রতিনিয়ত পড়ুন
কবিতা | ৮ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ২০৪ বার দেখা | ৬০ শব্দ
শোফার নলেজ (মুখ ও মুখোশ)
ম্যাক্স প্লাংক সাহেব ১৯১৮ সালে পদার্থবিদ্যায় নোবল প্রাইজ জেতেন। ঐ বছর তিনি জার্মানি ভ্রমনে যান। সেখানে প্রচুর অভ্যর্থনা- সংবর্ধনা পান, স্বাভাবিকভাবেই প্রচুর বক্তৃতা করা লাগে। প্রতিটি সেমিনারে-সভাতে কোয়ান্টাম মেকানিক্সের উপর একই বক্তৃতা শুনতে প্লাংকের শোফার সেটা মুখস্থ করে ফেলেছিল। একই বিষয় শুনতে শুনতে সে পড়ুন
অনুবাদ, প্রবন্ধ | ৬ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ২৯৬ বার দেখা | ৬৩৩ শব্দ
গৌতমের অফিস
গৌতমের অফিস আমার বন্ধু গৌতম মুচি ছিল
তার রোজগার বেশ ভাল
আমরা প্রায়ই তার রোজগারে চা খেতাম প্রাইমারি পেরিয়ে উচ্চ বিদ্যালয়ের
অষ্টম ক্লাসে তার শিক্ষার পরিসমাপ্তি হলে
বাবার ইচ্ছায় পৈত্রিক ব্যবসায় লেগে যায় বাবা আর ভার বহণে অক্ষম
সংসারের কিছু ভার তোমার কাধে নাও
ভার নিতে গৌতমের আপত্তি ছিল না কিন্তু
বন্ধুদের সাথে স্কুলে পড়ুন
কবিতা | ৬ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ২১৭ বার দেখা | ১৫৮ শব্দ
বাঁচাও শীতলক্ষ্যা
বাঁচাও শীতলক্ষ্যা
বাঁচাও শীতলক্ষ্যা আমাদের লক্ষ্যা নদী চলে বাঁকে বাঁকে,
বছরের বারোমাস নদীতে পচা পানি থাকে।
নদীতে নেই জেলেদের নৌকা মাছের আকাল,
কেউ আর করে না গোসল সকাল বিকাল। মা বোনেরা নেয় না পানি কলসি ভরে,
পানের অযোগ্য তা করবে কেমন করে।
নদীতে বিষাক্ত পানি ময়লায় একাকার,
হয়েছে বেদখল নদীর পড়ুন
কবিতা | ৮ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১৮২ বার দেখা | ১০৭ শব্দ ১টি ছবি
নিকটবর্তী সমুদ্রের সফটওয়্যার
নিকটবর্তী সমুদ্রের সফটওয়্যার দুষ্ট হাওয়া উড়িয়ে নেয় আমার মাথার টুপি। হ্যাটস অফ কুর্ণিশ জানাতে
চেয়েছিলাম যে সমুদ্রকে- সেও ফিরিয়ে নেয় মুখ। আমার সঞ্চয় থেকে ফুরিয়ে
গেছে সকল ভরসা, সেকথা ভেবে প্রজাপতিগুলো উড়ে যায় আমাকে ছেড়ে।
একসময় কালি, কলম আর কাগজ দিয়ে যে কবিতা লিখতাম, তাও হয়ে যায়
আমার কাছে পড়ুন
কবিতা | ৪ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১৮৯ বার দেখা | ৯৫ শব্দ
এই ঘাটে সোনালি চরের মাঠ
এই ঘাটে সোনালি চরের মাঠ
এই ঘাটে সোনালি চরের মাঠ এই ঘাটে সোনালি চরের মাঠ
বুনে যায় সঞ্চয়ের ক্ষেত। হাড়িভরা শাদা ভাতে বধূর সংসার;
ঘরে দুখানি ফুলের টপ, বালুসাই জঙ্গল মাখা গোধূলি জানালা
পরিব্যাপ্তি মাটির দেয়ালে লাল কাঁকড়ার কিলবিল খেলা,
জলপাইরঙা দেশ পলাশ উড়ানি মাতৃভূমি-
নদীভরা রুপার জলে-বেঁচে ওঠে দ্বিবীজ প্রাণ
সারিকা পড়ুন
কবিতা | ৩ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১৪৮ বার দেখা | ৪৫ শব্দ ১টি ছবি
বিষ
বিষ সূর্য উঠলেই দিবস
সূর্য ডুবলেই রাত্রি,
তবুও কেও কেও মেতে ওঠে বিশেষ দিবসে, হয়ে অবশ; ভ্যালেন্টাইন – ভালোবাসা দিবস,
কি এক অদ্ভুত নামই না দিয়েছ তোমরা!
কি সব অদ্ভুত কাণ্ড কারখানাতেই না মেতে থাক সার দিন ব্যাপী! ফুলওয়ালা, গিফট শপগুলোর রমরমা ব্যবসা
খাবার দোকানগুলোতে গিজগিজে ভিড়
বিশেষ কিছু হোটেলে তো এ দিনে পড়ুন
কবিতা | ৩ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১২১ বার দেখা | ১৫২ শব্দ
তাকে চাই তাকে চাই
তাকে চাই তাকে চাই

অন্তর জুড়ে শুধু ভাবনার, কোলাহল-কোলাহল,
সত্ত্বা জুড়ে হাসি মুখে আছে, অবিচল-অবিচল।
দিনরাত ধরে ভেবে ভেবে চোখে, ঘুম নাই-ঘুম নাই,
বিনিদ্র এই আত্মা জুড়াতে, তাকে চাই-তাকে চাই। প্রেমের নদীতে পাল তুলে আমি, ভেসে যাই-ভেসে যাই,
আর ভালোবাসা ফুল হয়ে ঝরে, আঙিনায়-আঙিনায়।
কষ্ট পেলেও পড়ুন
কবিতা | ১০ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ২১০ বার দেখা | ১১৩ শব্দ ১টি ছবি
গাঁয়ে আছে ছোট ঘর
গাঁয়ে আছে ছোট ঘর
“গাঁয়ে আছে ছোট ঘর” কবিতাটি ছোটদের উপযোগী ছড়ার কবিতা। শিশুদের উপযোগী এই ধরণের ছড়া কবিতার রচনা কবির প্রথম প্রয়াস। আশা করি সহৃদয় কবিবন্ধু ও পাঠকগণ কবিতা সংক্রান্ত সু-পরামর্শ দিলে বাধিত হব। শব্দনীড় ব্লগের সাথে সংযুক্ত সকল কবিবন্ধু ও লেখকবন্ধুদের জানাই আন্তরিক ফাগুন শুভেচ্ছা।
সাথে থাকুন, পাশে পড়ুন
কবিতা | ৫ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ২৫০ বার দেখা | ১৪২ শব্দ ২টি ছবি
নীরাপুরের চিঠি (প্রথম অংশ)
(GBV বা জেন্ডার বেজড ভায়োলেন্স লেখাটার মূল বিষয়। কাল্পনিক।) “পরে অবশ্য ভাবিয়াছি, আমি তাহার কাছে বন্ধক রাখা কোন সম্পত্তি নহি যে তাহাকে কেন্দ্র করিয়া আমার মরিবার বা বাঁচিয়া থাকিবার সব আয়োজন করিতে হইবে ! তাই আড়াইকুড়ি বছর পার করিবার পরও আজ স্বপ্ন দেখিতেছি, পড়ুন
গল্প | ১০ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৫৯৯ বার দেখা | ২৮৪ শব্দ
ছুঁইতে পারি
ছুঁইতে পারি
ছুঁইতে পারি আমি আকাশ ছুঁইতে পারি
আর পারি বসন্তের জল
আমার কোকিল গান গেয়ে যায়
আকাশ বাতাস দিয়ে আড়ি। নিশি ক্ষণে মেঘমালা মন গুড়গুড়ায়
বৃষ্টির সাথে কাদামাখায়-
সোনালী মাঠের পারে দৃষ্টি শুধু
ফুড় ফুড়ায়; কোনদিন যাবো রে মেঠো পথ দিয়ে তোর বাড়ির আঙ্গীনায়-
নীল সবুজের ছুঁয়ে নিবো পড়ুন
কবিতা | ৬ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১৫৮ বার দেখা | ৪৬ শব্দ ১টি ছবি
প্রকাশ লিপি
প্রকাশলিপি উল্টো বেরিয়ে সোজা হয়েই
দু ঠোঁটের পাতলা ফাঁকে অস্বস্তি জানিয়ে
বলেছিলাম ‘মা’,
কান্নার আওয়াজ ভেবে বহিরাগতরা
আনন্দে শ্যাম্পেন খুলেছিল। এইভাবে পাঠভবনের দরজা খুলে
হাঁটিহাঁটি পা পা করে কখন যেন
চর্যাপদ-লুই-কুক্কুরী-চরিতামৃত-মঙ্গল
একে একে ধাপের পর ধাপ
স্বর্গের অন্তহীন সিঁড়ির নীচের অংশ
ছুঁয়ে নিজেকে অফুরান পণ্ডিত
ভাবতে শুরু করেছিলাম নিখাদ মূর্খতায়। নিছক দেশীয় মাধ্যমের পাতি পড়ুয়ার
দুই সন্তান এখন পড়ুন
কবিতা | ১০ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৩৬১ বার দেখা | ১১৪ শব্দ