মোকসেদুল ইসলাম-এর ব্লগ
এই শীতে আপেলের সৌন্দর্য
এই শীতে আপেলের সৌন্দর্য শীতের দ্বিতীয় পর্ব শুরু হলে আমরা খুঁজতে বের হই আপেলের সৌন্দর্য। জ্বর কিংবা শীত হাওয়ার পর কেমন যেন ঈর্ষা জাগে। বাতাসী মেয়েরা কেমন দাঁড়িয়ে থাকে শীতের ওড়না ধরে। কিন্তু কে না জানে শীতের সমস্ত সৌন্দর্য লুকিয়ে থাকে নগ্নতার ভেতর। গার্হস্থ্য দিনে পড়ুন
জীবন | ৩ টি মন্তব্য | ১৩ বার দেখা | ১৫৫ শব্দ
ঘুমঘরের হাহাকার
পাটওয়ারী,
তুমি কি ঘুমিয়ে গেছো?
চারদিকে এখন কাঁচা অন্ধকার
আমি দাঁড়িয়ে আছি পৃথিবীর মধ্যিখানে
উত্তুরে তারার মতো শিহরণ বুকে নিয়ে পাটওয়ারী,
এখন ঘুমানোর সময়
বুকের ভেতর তোমার রক্তিম রোগ
ইচ্ছে স্রোত বইছে সেথায়
কে শোনে সর্বনাশা পৃথিবীর বুকফাটা যন্ত্রনা এখন চন্দ্রাহত সময় ব্যথিত অহরাত্রি
পাটওয়ারী,
ঘুমিয়ে গেছো বুঝি?
তোমার নিঃশ্বাস থেকে খসে পড়ছে
নীলক্ষেত শাহবাগের হাহাকার। পড়ুন
কবিতা | ৩ টি মন্তব্য | ১৭ বার দেখা | ৪৪ শব্দ
মানুষের খুব বাজে স্বভাব
মানুষের খুব বাজে স্বভাব মানুষের খুব বাজে স্বভাব
অকারণেই তারা ঘেউ ঘেউ করে
আগুনের আংটায় ঝুলে থাকে মাংসের লোভ
একটা ধূমকেতু উড়ে যাবার পর
ছাদে উঠে যায় হাতে নিয়ে রাশিয়ান ভদকা মানুষের খুব বাজে স্বভাব
তারা অহেতুক রং বদলায়
এত পোশাক! তবু খুলে নেয় বৃক্ষের বল্কল
প্রার্থনা নয়, দু’হাতে ঘাই মারে
সোমত্ত সন্ধ্যাটা ডুবে পড়ুন
কবিতা | ৬ টি মন্তব্য | ১৭ বার দেখা | ৫৭ শব্দ
নাম চাই
‘শিল্প-সাহিত্য এবং প্রকৃতি ও পরিবেশ’ এই নিয়ে একটি লিটলম্যাগ বের হবে অচিরেই। এর জন্য একটি সুন্দর নাম চাই। পড়ুন
বিবিধ | ৫ টি মন্তব্য | ২৪ বার দেখা | ১৭ শব্দ
একটি আদর্শ রাষ্ট্রের ধারণা
একটি আদর্শ রাষ্ট্রের ধারণা নিতে হলে কোথায় যেতে হবে আমাদের?
এই প্রশ্ন করার পর জানালার পর্দাটা টানতে টানতে এক অন্ধ দার্শনিক বললেন-
আদর্শ রাষ্ট্রের ধারণা নিতে হলে আপনাকে প্লেটোর কাছেই যেতে হবে।
‘প্লেটো তো তার আদর্শ রাষ্ট্রে কবিকুলের তেমন কোন জায়গা রাখেন নি’
এই কথা শোনা মাত্রই তিনি পড়ুন
কবিতা | ৬ টি মন্তব্য | ২৪ বার দেখা | ২০৪ শব্দ
আলোর নাচ
আলোর নাচ কত গভীরে থাকে মানুষের চোখ
এতোটা অন্ধকার – হা-হুতাশ
অথৈ সাগরে ডুবে যায় জীবনের রং
তবু আগুন আগুন খেলা
এ পোড়া চোখ নীড় নয়
বিবর্ণ আলোর নাচন।
কত গভীরের থাকে চোখ
ধরে রাখি মুঠো মুঠো অন্ধকার
হৃদয় জুড়ে ভাঙ্গনের গান
তবু স্বপ্ন দেখে চোখ
শাল – তমালের বন
রংতুলি আর আলোর নাচন। পড়ুন
কবিতা | ৩ টি মন্তব্য | ২৮ বার দেখা | ৪২ শব্দ
দুঃখ
দুঃখ যেদিকে দুঃখ যায়
সেদিকে হাট বসে – দেবদারুর মাথায়
দ থেকে দুঃখের উৎপত্তি
মোমের আগায় জ্বলে থাকা টিমটিম আলো
নদী – দুঃখের আর এক নাম
সুখ – তারও ডাক নাম নদী। যেদিকে দুঃখ যায়
সুখ তার পিছু পিছু হাটে। পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | ১৮ বার দেখা | ৩২ শব্দ
দৃশ্যপটহীন দৃশ্য
দৃশ্যপটহীন দৃশ্য ঢেউকল ছুঁড়ে দেয়ার পর সাগর উত্তাল হলে
আমাদের অনিশ্চিত গন্তব্যে যাত্রা শুরু হয়
ভাতপাতে বিষ নিয়ে যে দৃশ্যের জন্ম দিই
সেখানে হরিণশাবক মন নিয়ে অন্ধকারে
পরে থাকে তাড়া করা বাঘ
মূলত এইসব দৃশ্যের অবতারণা করতে গিয়ে
নিরাপদে বাড়ি ফেরা হয় না আমাদের
খুব সম্ভবত মৃত্যুর অভিনয় করতে গিয়ে
পুড়িয়ে ফেলি মুখস্থ পড়ুন
কবিতা | ৫ টি মন্তব্য | ২০ বার দেখা | ৬৮ শব্দ
মানুষের জয় হবে
মানুষের জয় হবে মানুষ একদিন ঠিকই জিতে যাবে
তুমি সেদিন দেখে নিও
মানুষ মানুষের জন্য মিছিলে যাবে
তীব্র রোদ্দুরে ময়দানে হাঁটবে, যুদ্ধে যাবে
রাস্তায় নামবে মঙ্গল প্রার্থনা শেষে
সকালের বিশ্বাস বুকে নিয়ে গড়ে তুলবে
সম্পর্কের নতুন শিল্প। মানুষ জিতে যাবে একদিন
তন্দুরে যেমন আগুন জ্বলে
পবিত্র পাপকে পুড়িয়ে মানুষও একদিন জেগে উঠবে
চোখের প্রার্থনা শেষে পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | ১৩ বার দেখা | ১৪১ শব্দ
দুটি অনুকবিতা
(১) দহন কালে এবার আনন্দ পান করি
রূপালী মেয়ে, তুমি বুক পেতে দিও
ভেজা শরীরে আমি গুম হতে চাই। (২) স্বপ্নের জঠরে বাসা বেঁধেছে কালনাগিনী সাপ
অবাধ্য কলমের ভাষা আর বিচিত্র নকশার আঁকিবুকিতে
পচন ধরেছে আততায়ীর ছুরি। পড়ুন
কবিতা | ৩ টি মন্তব্য | ৩৩ বার দেখা | ৩০ শব্দ
লিজ ... একটু ছুুঁয়ে দিয়ে যা না
লিজ একটু ছুুঁয়ে দিযে যা না শুধু তুই ছুঁয়ে দিলে নদী হয়ে যাই
ভিজিয়ে দিলে এক সমুদ্র
আমার ঠিকানা ছাতিমগাছ
মুখোমুখি বসে থাকা শালিক। হাওয়ার টঙ্কার এক শরীরী ভাষা
এইযে দেহতত্ব – বিনির্মাণ
রোজ রোজ তবু ছুঁয়ে দেয়
সহস্র হাত। অন্ধকারে রাতের বেদনা বাড়ে
ভাঙ্গছে মোমঘর
ছিঁড়ছে বেদনার এপিটাফ
জীবনের প্রাসঙ্গিকতা কোথায়? শুধু তুই ছুঁয়ে দিলে পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ১৮ বার দেখা | ৬৩ শব্দ
পা
পা ঘর থেকে বের হলেই পা গুলো হয়ে ওঠে
বাস, ট্রেন, রিক্সা ক্ষেত্রবিশেষে আকাশ যান
প্রণামের যোগ্য পা গুলো ছুটছে বিরামহীন
ঘর থেকে মাঠ, মাঠ থেকে বাজার
রাজধানী শহর, গলি-ঘুপচি ঘর সবখানে বিষাদ দৃষ্টি আর সমূহ বেদনা নিয়ে অভিশপ্ত গোটা আয়ুষ্কাল
পূর্ব – পশ্চিম, উত্তর থেকে দক্ষিণ মৃত্যুকে শিয়রে রেখে
পা গুলো পড়ুন
কবিতা | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৫২ বার দেখা | ৮৩ শব্দ
ব্যস্ততা কেড়ে নিচ্ছে সব
তারপর কেটে গেছে অনেকদিন। কিন্তু ব্যস্ততার হাত থেকে আমি এখনো রক্ষা পাইনি। কি বাসায়, কি অফিসে শুধুই ব্যস্ততা। এমন ব্যস্ত খুব কমই ছিলাম। অথচ এই আমাকে দেখে কে বলবে, অজপাড়া গাঁয়ের এই ছেলেটি, যার কিনা নুন আনতে পান্তা ফুরোয় অবস্থা ছিল এককালে সে পড়ুন
বিবিধ | ২ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৩১ বার দেখা | ১৪৯ শব্দ
অপত্য
অপত্য কিছু না বলে পাশ ফিরে চলে যাওয়া
এইযে শ্রান্তির উৎস – সেটাই বা কম কিসে
ভাতঘুমটা ভেঙ্গে গেলে জেগে উঠি পাখির মতো দাড়ি থেকে ভাঙ্গতে ভাঙ্গতে কমা’য় এসে থামছি
ফুসফুস বিবর্জিত বাতাস – অসময়ে ডাকে
যার হয় নাভি বেদনা – তিনি সয়ে যান সব মাত্রাতিরিক্ত শব্দশিশি – মুঠোবদ্ধ হাত
চোখের সামনে পড়ুন
কবিতা | ৩ টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৩০ বার দেখা | ৫১ শব্দ
উর্বশী চাঁদের হাট
উর্বশী চাঁদের হাট পরম বিশ্বাসী বন্ধু আমার, হারিয়ে যাওয়ার আগে বিশ্বাস ভেঙ্গে দিয়ে যেও। উপেক্ষিত প্রণয়ের দিনে স্বাক্ষী থাকুক ভেজা মন, নষ্ট বুকখানি। তুমি তো চলেই গেছ, বিপন্ন ধারাপাতে জটিল হয়েছে যে জীবন সেতো আমার নয়। সন্তর্পণ আর্তনাদ করে উড়ে যায় যে পাখি তাঁর কাছে পড়ুন
জীবন | ১টি মন্তব্য | মন্তব্য বন্ধ রাখা আছে | ৩৭ বার দেখা | ১২২ শব্দ